আজ মহাঅষ্টমী

স্টাফ রিপোর্টার
আজ সোমবার দেবীপক্ষের মহাঅষ্টমী তিথি। একশো আটটা পদ্ম দিয়ে আজ পূজিত হবেন দেবী দুর্গা। সন্ধ্যায় সন্ধি পূজায় একশো আটটা প্রদীপ দিয়ে দেবীকে আরতি করা হবে। সন্ধিপূজা মা দুর্গার আরাধনার এক বিশেষ মুহূর্ত। সন্ধি মানে মিলন। এই মুহূর্তটি হল অষ্টমী তিথি ও নবমী তিথির মিলন। মহাসন্ধিক্ষণ। অষ্টমী তিথির শেষ চব্বিশ মিনিট ও নবমী তিথির প্রথম চব্বিশ মিনিট মিলিয়ে মোট আটচল্লিশ মিনিট। এই সন্ধিক্ষণেই দেবী জেগে উঠে উগ্রচ-ী রূপ ধারণ করেছিলেন। তাই এই সময় দেবীর বিশেষ পূজা। অশুভ শক্তির বিনাশ করে শুভ শক্তির জয়ের জন্য আরাধনা। সন্ধিপূজা হল সেই সন্ধ্যার প্রতীক যখন মা দুর্গা চন্ড ও মুন্ড নামে দুই ভয়ঙ্কর অসুরকে বধ করেছিলেন। এই সময়ে মূলত দেবী চামুন্ডার পূজা করা হয়। এর মূলে রামায়ণের কাহিনী আমরা সবাই জানি। রাবণ বধের জন্য রাম ১০৮ পদ্ম দিয়ে দেবীর পূজা করেন ও তারপর রাবণ নিধন হয়। সেই সূত্রেই এই সন্ধি পূজা করা হয়। দেবী শক্তির বন্দনা এবং অসুর বধে অশুভ খন্ডনের প্রত্যয়ে আজ শারদীয় দুর্গোৎসবের মহাঅষ্টমী পালিত হবে।
এদিকে রবিবার ছিল শারদীয় দুর্গাপূজার মহাসপ্তমী। পূজামন্ডপগুলোতে পূজা-অর্চনার মাধ্যমে মহাসপ্তমী উদযাপন করা হয়। ভক্তরা দেবীর আরাধনায় পূজাম-পগুলোতে দিনভর ভিড় জমায়। পূজা শেষে হাতের মুঠোয় ফুল, বেলপাতা নিয়ে ভক্তরা মন্ত্র উচ্চারণের মধ্য দিয়ে এবারের পূজার প্রথম অঞ্জলি দেন দেবীর পায়ে। করজোরে কাতর কণ্ঠে জগজ্জননীর কাছে শান্তিময় বিশে^র প্রার্থনা করেন ভক্তরা।
এর আগে মহাষষ্ঠী পূজার মধ্য দিয়ে শনিবার শুরু হয় পাঁচ দিনব্যাপী শারদীয় দুর্গোৎসব। বিজয়া দশমীতে দেবী বিসর্জনের মধ্যদিয়ে আগামী ৫ অক্টোবর শেষ হবে এবারের দুর্গোৎসব।