তাহিরপুরে ৯ শ্রমিকের কারাদণ্ড, ১১টি নৌকায় আগুন

স্টাফ রিপোর্টার, তাহিরপুর
তাহিরপুর উপজেলার যাাদুকাটা নদীতে অবৈধভাবে নদীর তীর কেটে বালি পাথর উত্তোলন করার সময় ১১ টি নৌকা ও ৯ জন শ্রমিককে আটক করেছে তাহিরপুর থানা পুলিশ। সোমবার সন্ধ্যায় তাহিরপুর উপজেলা ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী অফিসার মুনতাসির হাসান তাহিরপুর থানা পুলিশদের সাথে নিয়ে এ অভিযান চালান।
আটককৃত শ্রমিকরা হলো, উপজেলার গুটিলা গ্রামের মৃত মুহাম্মদ আলীর ছেলে বিল্লাল মিয়া(৩৪),ইউনুছপুর গ্রামের ছাদেক মিয়ার ছেলে আকিক মিয়া(২৪), মনা মিয়ার ছেলে কাদির মিয়া(৩২), বড়খলা গ্রামের ফরিদ মিয়ার ছেলে বাদল মিয়া(২৫), সোনাপুর গ্রামের রফিকুল হকের ছেলে নুর জামাল(২৪),কুকুরকান্দি গ্রামের ফজলুল রহমানের ছেলে আঃ শহিদ(২২), রসুলপুর গ্রামের নুর ইসলামের ছেলে শাহ্ আলম (২৫),পাতারগাও গ্রামের হানিফ মিয়ার ছেলে সাইফুল ইসলাম(২৪) ও বাবুল মিয়ার ছেলে রকিব মিয়া (২৩)।
আটককৃত নৌকাগুলো তাহিরপুর উপজেলা ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মুনতাসির হসান যাদুকাটা নদীর বড়টেক এলাকায় জনসম্মুখে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে ধ্বংস করেন। আটককৃতদের রাত ৮টায় তাহিরপুর উপজেলা ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মুনতাসির হাসান ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে প্রত্যেক শ্রমিককে ১০ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদান করেন।
তাহিরপুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ আতিকুর রহমান এর সত্যতা স্বীকার করে বলেন, দন্ডপ্রাপ্ত শ্রমিকদের মঙ্গলবার সকালে সুনামগঞ্জ জেল হাজতে প্রেরণ করা হবে।