নতুন করে আক্রান্ত ২৬ জন, আরোগ্য লাভ করেছেন ৫২ জন

স্টাফ রিপোর্টার
সুনামগঞ্জ জেলায় নতুন করে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ২৬ জন। রবিবার সিলেট শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের পিসিআর ল্যাবে নমুনা পরীক্ষায় এই ২৬ জন শনাক্ত হন। নতুন করে করোনা আক্রান্তদের মধ্যে রয়েছেন ছাতক উপজেলায় ১২ জন, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ৭ জন, দোয়ারাবাজার উপজেলার ৩ জন, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার ৩ জন এবং দিরাই উপজেলায় ১ জন। এনিয়ে প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা পৌঁছালো ৯৭৭ জনে। আক্রান্ত ব্যক্তিদের মধ্যে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ৩৭৪ জন। এ পর্যন্ত এই ভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে ৫ জনের। এছাড়াও রবিবার সিলেট শহীদ শামসুদ্দিন হাসপাতালে করোনা উপসর্গ নিয়ে সুনামগঞ্জ পৌর শহরের এক ব্যবসায়ীর মৃত্যু হয়েছে। তিনি গত শনিবার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন।
এদিকে জেলা প্রশাসনের তথ্যমতে, রবিবার নতুন করে আরোগ্য লাভ করেছেন ৫২ জন। এরমধ্যে ছাতক উপজেলায় ১৪জন, সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ৬ জন, দোয়ারাবাজার উপজেলা থেকে ১০ জন, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা থেকে ৪ জন, শাল্লা উপজেলা থেকে ৬ জন, জগন্নাথপুর উপজেলার ৮ জন, দিরাই উপজেলা থেকে ৩ জন, তাহিরপুর উপজেলা থেকে ১ জন। বাড়িতে কোয়ারেন্টাইনে গেছেন ১৩ জন, আইসোলেসনে গেছেন ২৪ জন, কোয়ারেন্টাইন/আইসোলেসন থেকে ছাড়পত্র পেয়েছেন ৯৬ জন।
এ পর্যন্ত সুনামগঞ্জ জেলায় ৬ হাজার ৩৩ জনকে হোম কেয়ারেন্টাইনের আওতায় আনা হয়। কোয়ারেন্টাইন/আইসোলেসন থেকে ছাড়পত্র দেওয়া হয় ৬ হাজার ৬৯ জনকে। এ ছাড়া করোনা সন্দেহে এ পর্যন্ত ৯৫১ জনকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে। করোনা সন্দেহে এ পর্যন্ত ৮ হাজার ৪৩২ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। পরীক্ষা করা হয়েছে ৭ হাজার ৯শত ৫৪ জনের। তাদের মধ্যে সংক্রমণ শনাক্ত হয়েছে ৯৫১ জনের শরীরে।
সুনামগঞ্জ জেলায় প্রথম আক্রান্ত ব্যক্তি শনাক্ত হয় গত ১২ এপ্রিল। এরপরই আতঙ্ক সৃষ্টি হয়। করোনা আক্রান্ত শনাক্তে সবার উপরে রয়েছে ছাতক উপজেলা। আক্রান্ত হয়েছেন ২৬৪ জন। এছাড়াও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ২৪৭ জন, দোয়ারাবাজার উপজেলা থেকে ৮৭ জন, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা থেকে ৭০ জন, শাল্লা উপজেলা থেকে ৩৬ জন, জগন্নাথপুর উপজেলার ৮২ জন, দিরাই উপজেলা থেকে ৩৬ জন, ছাতক উপজেলার ১৯ জন, জামালগঞ্জ উপজেলা থেকে ৬৪ জন, বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা থেকে ৩৫ জন, তাহিরপুর উপজেলা থেকে ৩৭ জন, ধর্মপাশা উপজেলা থেকে ১৯ জন।
করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে সবচেয়ে বেশী ৯২ জন সুস্থ হয়েছেন ছাতক উপজেলায়। এছাড়াও সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার ৬২ জন, দোয়ারাবাজার উপজেলা থেকে ৪৮ জন, দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা থেকে ২০ জন, শাল্লা উপজেলা থেকে ১৭ জন, জগন্নাথপুর উপজেলার ৩৯ জন, দিরাই উপজেলা থেকে ১২ জন, ছাতক উপজেলার ৯২ জন, জামালগঞ্জ উপজেলা থেকে ২৭ জন, বিশ্বম্ভরপুর উপজেলা থেকে ২২ জন, তাহিরপুর উপজেলা থেকে ১৭ জন, ধর্মপাশা উপজেলা থেকে ১৮ জন।