নিখোঁজ শিশুকন্যা জগন্নাথপুর থানা পুলিশ হেফাজতে

জগন্নাথপুর অফিস
নিখোঁজ হওয়া এক শিশুকন্যাকে জগন্নাথপুরে পুলিশ হেফাজত দেওয়া হয়েছে।
মঙ্গলবার সকাল ১১টার দিকে ওই শিশু কন্যাকে জগন্নাথপুর থানায় হস্তান্তর করা হয়।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, পৌরশহরের জগন্নাথপুর বাসস্ট্যান্ড থেকে একটি যাত্রীবাহী বাস সিলেটের
উদ্যেশ্যে রওয়ানা হয়। পথ্যিমধ্যে পৌরএলাকার হবিবপুর মাদ্রাসা পয়েন্ট থেকে সাত/আট বছরের একটি মেয়ে বাসে উঠে। ওই সময় বাসের হেল্পার তাকে কোথায় যাবে জিজ্ঞাসা করলে মেয়েটি অগোচালোভাবে কথা বলে। এতে করে হেল্পার মেয়েটিকে গাড়ি থেকে নামিয়ে স্থানীয় ভবেরবাজার বাস কাউন্টারের ম্যানেজারের নিটক হস্তান্তর করে।
পৌরএলাকার ভবেরবাজার বাস কাউন্টারের ম্যানেজার আবদুল কাদির বলেন, বাসের হেল্পার মেয়েটিকে বলে, সে যাত্রাবাড়ি যাবে। আরেক বার বলে, ঢাকায় যাবে। সে কোথা থেকে কীভাবে এসেছে জানতে চাইলে কোন কিছু বলতে পারেনি। মেয়েটিকে কিছুটা অসুস্থ লাগছে। জিজ্ঞাসাবাদে মেয়েটি জানায় তার নাম কুলসুম বেগম। পরে আমি মেয়েটিকে জগন্নাথপুর থানা পুলিশে হস্তান্তর করেছি।
জগন্নাথপুর থানার ওসি হারুনুর রশীদ চৌধুরী বলেন, জগন্নাথপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ওসি হারুনুর রশীদ চৌধুরী বলেন, মেয়েটি আমাদেরকে জানিয়েছে তার বাবার নাম দুলাল মিয়া। বাবার বাড়ি ময়মনসিংহ জেলার তারকান্দা থানার ভৌলা গ্রামে। পরিবারের লোকজন ঢাকার যাত্রাবাড়ীর থানার শনির আখড়া মাজার এলাকায় থাকে। তার নানাবাড়ী ভোলা জেলার লালমোহন থানার ফুলবাগিজা গ্রামে। কীভাবে জগন্নাথপুর এসেছে এ ব্যাপারে কিছুই বলতে পারেনি। ওসি বলেন,আমরা মেয়েটির ব্যাপারে যাত্রাবাড়ি থানায় খোঁজ নিয়ে সত্যতা পাইনি।