পৌরসভার নির্মাণাধীন মার্কেট পরিত্যক্ত পড়ে আছে

স্টাফ রিপোর্টার
শহরের প্রধান মাছ বাজার (কিচেন মার্কেট) এর পাশে পৌরসভার উদ্যোগে ব্যবসায়ীদের জন্য নির্মাণাধীন টিনসেড মার্কেটটি পরিত্যক্ত অবস্থায় পড়ে আছে। সরকারী জায়গার উপর এই সেড নির্মাণ করায় কয়েক মাস আগে উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করে মার্কেটের একাধিক পাকা পিলারের নিচের অংশ ভেঙে ফেলা হয়।
সেডের জায়গা বন্দোবস্ত পেতে আবেদন করা হলেও সদর উপজেলা ভূমি অফিস এই আবেদন নাকচ করে দিয়েছে। পরিত্যক্ত সেডটিতে এখন মোরগের খাঁচা রাখার ফলে অপরিচ্ছন্ন পরিবেশ তৈরি হয়েছে।
একাধিক ব্যবসায়ী জানান, গত বছর পৌরসভার উদ্যোগে ব্যবসায়ীদের জন্য ২৪ কোঠা বিশিষ্ট একটি টিন শেড ঘর নির্মাণ করা হয়। পাকা পিলার, টিনের ছাউনি এবং ইটের গাথুনি দিয়ে কোঠাও পৃথক করার কাজ প্রায় শেষ করা হয়। শুধুমাত্র ইটের দেয়ালের কাজ ও ফ্লোর পাকাকরণ হলে ব্যবসায়ীরা বসে মালামাল বেচাকেনা করতে পারতেন। কিন্তু এই সময়ে হঠাৎ মোবাইল কোর্টের অভিযান পরিচালনা করে মার্কেটের কার্যক্রম বন্ধ করে দেয়া হয়।
সবজির বাজারে আসা ক্রেতা সাজাউর রহমান বলেন,‘পুরাতন জেল রোড থেকে মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্স পর্যন্ত সবজির দোকান বসে। এতে যানবাহন ও কলেজের মেয়েদের আসা-যাওয়া করতে সমস্যা হয়। ওই মার্কেটের এই সব দোকানগুলো অস্থায়ীভাবে ব্যবহারের জন্য ব্যবস্থা করে দিলে এই রোড পরিচ্ছন্ন থাকতো।’
বিষ্ণুপদ রায় বলেন,‘জায়গাটি সরকারের, এটা বেআইনীভাবে দখল করে কেউ রাখতে পারবে না। ভবনটি পরিত্যক্ত ফেলে রাখার চেয়ে মানুষ ব্যবসা করে বেঁচে থাকলে অনেকটা ভাল হতো।’
সদর উপজেলা ভূমি অফিস সূত্রে জানা যায়, সুনামগঞ্জ পৌরসভার প্রধান মাছ বাজার (কিচেন মার্কেট) এর পাশে ব্যবসায়ীদের জন্য নির্মাণাধীন মার্কেটের বৈধতা দেয়ার সুযোগ নেই বলে আবেদন নাকচ করে দেয়া হয়।
পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মীর মোশারফ হোসেন বলেন,‘সুনামগঞ্জ পৌরসভার প্রধান মাছ বাজার (কিচেন মার্কেট) এর পাশে নির্মিত মার্কেটের জায়গা বন্দোবস্ত পাওয়ার জন্য আবেদন করা হয়েছে। এ পর্যন্ত কোনো কিছু হয়নি।’