বাঘরা ও সুন্দরপই গ্রামে সড়ক নির্মাণের দাবিতে মানববন্ধন

দোয়ারাবাজার প্রতিনিধি
‘দাবি মোদের একটাই, দোয়ারাবাজার পলিটেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ হতে বাঘরা স্কুল হয়ে সুন্দরপই গ্রাম পর্যন্ত সড়ক নির্মাণ চাই’ শ্লোগানকে সামনে রেখে দোয়ারাবাজারে সড়ক নির্মাণের দাবিতে মানববন্ধন করেছেন গ্রামবাসী।
শুক্রবার বিকাল ৩টায় দোয়ারাবাজার সদর ইউনিয়নের বাঘরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় সড়কে মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, উপজেলা সদরের সবচেয়ে অবহেলিত গ্রাম বাঘরা ও সুন্দরপই। যোগাযোগের জন্য সড়ক না থাকায় এই এলাকার মানুষকে বছরের ৭/৮ মাস নৌকায় ও বাকি ৪/৫ মাস কাদা জল মাড়িয়ে চলাচল করতে হয়। গ্রামে একটা প্রাথমিক বিদ্যালয় থাকলেও মাধ্যমিক পর্যায়ে শিক্ষার জন্য শিক্ষার্থীদের দোয়ারাবাজার সদরে যেতে হয়। অফিসিয়াল কাজকর্ম ও হাটবাজার করার জন্য প্রতিনিয়ত দোয়ারাবাজার যেতে হয়। সড়ক না থাকায় মুমূর্ষু রোগীরা চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে পৌঁছার আগে পথিমধ্যেই মারা যায়। কাচা অথবা পাকা কোন প্রকার সড়ক না থাকায় এই এলাকার মানুষকে হাওরের বনজঙ্গল পাড়ি দিয়ে উপজেলা সদরে আসতে হয়।
বক্তারা বলেন, এলাকাবাসীর দীর্ঘদিনের দাবি দোয়ারাবাজার পলিটেকনিক্যাল স্কুল এন্ড কলেজ হতে বাঘরা স্কুল হয়ে সুন্দরপই গ্রাম পর্যন্ত সড়কের। সড়ক নির্মিত হলে বাঘরা ও সুন্দরপুই গ্রামের কয়েক হাজার মানুষের যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়ন ও চলাচলে সুবিধা হতো। মানববন্ধনে বক্তারা বাঘরা ও সুন্দরপই গ্রামের একমাত্র সড়কটি নির্মাণে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও সংসদ সদস্য মুহিবুর রহমান মানিকের সুদৃষ্টি কামনা করেন।
মানববন্ধনে উপস্থিত ছিলেন মো. আব্দুর রশিদ, মদরিছ আলী, আব্দুর রাজ্জাক, আব্দুল হক, আয়েশা বেগম, আরমিছ আলী,আকলুছ মিয়া, এখলাছ মিয়া, মাওলানা নুর উদ্দিন, মো. আবুল কালাম, নুর আহমদ, আব্দুল হামিদ, ছমক আলী, আম্বিয়া বেগম, নুরুন নেছা, ফয়জুল মিয়া, আলমগীর, আকবর আলী, তেরা মিয়া, ছত্তার মিয়া, ডালিম, শুকুর মিয়া, মো. ছালেক মিয়া, এমরান মিয়া, ছাদিক মিয়া, সজিব, রজাক আলী,আংগুর মিয়া, আব্দুল ছালাম, সমুজ আলী, আলতাই মিয়া প্রমুখ।