বাল্যবিবাহ সন্দেহে তাহিরপুরে নিকাহ রেজিস্টার জব্দ

আমিনুল ইসলাম, তাহিরপুর
তাহিরপুরে নিকাহ রেজিষ্টার সৈয়দ আহমদের বিরুদ্ধে বাল্য বিবাহ পড়ানোর অভিযোগে ১৫টি নিকাহ রেজিস্টার জব্দ করেছেন ইউএনও তাহিরপুর। বৃহস্পতিবার দুপুরে এ সংক্রান্ত একটি লিখিত অভিযোগ তাহিরপুর উপজেলার সদর ইউনিয়নের উজান জামালগড় গ্রামের মৃত রাশিদ আলী মুন্সীর পুত্র মো. জিয়াউর রহমান ইউএনও তাহিরপুর বরাবরে দাখিল করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে নিকাহ রেজিষ্টার সৈয়দ আহমদকে তার রেজিষ্টার বহি ইউএনও কার্যালয়ে নিয়ে আসতে বললে তিনি এক পর্যায়ে অপারগতা দেখান। এর পর ইউএনও তাকে তার নিজ গ্রাম বিশ্বম্ভরপুর উপজেলার শক্তিয়ারখলা গ্রামের বসতবাড়ি থেকে ১৫টি নিকাহ রেজিষ্টার পরীক্ষা নীরিক্ষা করার জন্য জব্দ করে নিয়ে আসেন।
সৈয়দ আহমদ তাহিরপুর উপজেলার বালিজুড়ি ইউনিয়নের নিকাহ রেজিস্টার। তাহিরপুর সদর ইউনিয়নে কোন নিকাহ রেজিস্টার না থাকায় সেখানে তিনি অতিরিক্ত দায়িত্বে আছেন।
তাহিরপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পূর্ণেন্দু দেব বলেন, নিকাহ রেজিস্টার সৈয়দ আহমদের ১৫টি রেজিস্টারের অধিকাংশ বিয়েতেই দিন তারিখ ও স্বাক্ষরের গড়মিল সন্দেহে পরীক্ষা নীরিক্ষার জন্য জব্দ করা হয়েছে। বাদীর লিখিত অভিযোগটি সত্যতা প্রমাণিত হলে সৈয়দ আহমদের নিকাহ রেজিস্ট্রার নিবন্ধন বাতিলের জন্য সুপারিশ করা হবে।