বেরীগাঁও প্রাথমিক বিদ্যালয়ে সমস্যার অন্ত নেই

স্টাফ রিপোর্টার
সদর উপজেলার সুরমা ইউনিয়নের বেরীগাঁও সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দীর্ঘদিন ধরে অবকাঠামোগত উন্নয়ন নেই। ফলে নানা সমস্যায় জর্জরিত হয়ে পড়েছে বিদ্যালয়টি। এই বিদ্যালয় হালুয়ারঘাট-মঙ্গলকাটা সড়ক ও বেরীগাঁও-কৃষ্ণনগর সড়কের বাম পাশে অবস্থিত। বিদ্যালয়ে রয়েছে শ্রেণী কক্ষ সংকট, শিক্ষক সংকট, ভবন সংকট। এসব সমস্যা সমাধানে সংশ্লিষ্ট দপ্তরের দৃষ্টি কামনা করছেন বিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।
জানা যায়, ১৯৫০ সালে ৯৬ শতক জায়গার উপর প্রতিষ্ঠিত হয় এই বিদ্যালয়। বর্তমানে বিদ্যালয়ে ৩শত শিক্ষার্থীর জন্য রয়েছে ৪টি শ্রেণী কক্ষ। শিক্ষকের পদ ৮টি, আছেন ৪ জন। ১ জন শিক্ষক চলতি বছরের ১১ অক্টোবর থেকে অনুপস্থিত রয়েছেন বলে জানান প্রধান শিক্ষক।
বিদ্যালয়ের পুরাতন ভবন জরাজীর্ণ হয়ে আছে। এই ভবনে বৃষ্টির দিনে শিক্ষার্থীদের লেখাপড়া করানো সম্ভব হয় না। টিনের ছাউনিতে রয়েছে অসংখ্য ছিদ্র, দেয়াল অসংখ্য ফাটল দেখা যায়। দরজা-জানালা ভাঙা, ওয়াস ব্লক নেই, বিদ্যালয়ের চারিদিকে বাউ-ারী দেওয়াল নেই।
বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি মো. আব্দুল আলী বলেন,‘দীর্ঘদিন ধরে আমাদের বিদ্যালয়টি নানা সমস্যায় জর্জরিত। এমনকি বিদ্যালয়ে শিক্ষক সংকট রয়েছে। শিক্ষক সংকট নিরসনে চেষ্টা করে যাচ্ছি এবং বিদ্যালয়ের বাউ-ারী দেওয়াল নির্মাণের জন্যও চেষ্টা করছি।’
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সেলিনা বেগম বলেন,‘বিদ্যালয়ের পুরাতন ভবনটি সংস্কােেরর অভাবে ব্যবহারে অযোগ্য হয়ে পড়েছে। বিদ্যালয়ে নেই শিক্ষার্থীর জন্য কোনো ওয়াস ব্লক। শ্রেণী কক্ষসহ শিক্ষক সংকট রয়েছে। এই সমস্যা সমাধান হওয়া জরুরি প্রয়োজন।’