শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তি/ আ. লীগের বিবদমান দুই গ্রুপের আলাদা মিছিল

স্টাফ রিপোর্টার
কেন্দ্রীয় কর্মসূচী ঐক্যবদ্ধভাবে পালন করতে পারে নি সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগ। আলাদা আলাদা মিছিলকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষ শো-ডাউন করেছে শহরে। সকাল থেকেই শহর, শহরতলির বিভিন্ন এলাকা থেকে দুইপক্ষের নেতা কর্মীরা মিছিল করে এসে নিজ নিজ পক্ষের কর্মসূচীতে যোগদান করেন। পরে দুইপক্ষ পৃথক শো-ডাউন করে। জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নেতৃত্বে দলীয় নেতা কর্মীরা শহরের ঐতিহ্য জাদুঘর প্রাঙ্গণ থেকে এবং জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি’র নেতৃত্বে আরেকাংশ রমিজ বিপণির কার্যালয় থেকে মিছিল বের করে। দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনাকে নিয়ে কটুক্তি’র প্রতিবাদে শনিবার দুপুরে এই কর্মসূচী পালিত হয়। দুই মিছিলের ব্যানারেই জেলা আওয়ামী লীগের কথা উল্লেখ করা হয়।


ঐতিহ্য জাদুঘর প্রাঙ্গণ থেকে বের হওয়া মিছিলের নেতৃত্ব দেন জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মতিউর রহমান এবং সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার এম এনামুল কবির ইমন।
মিছিলের আগে ঐতিহ্য জাদুঘর প্রাঙ্গণে বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তব্য দেন দলীয় নেতা মতিউর রহমান, ব্যারিস্টার এনামুল কবির ইমন, পিপি খায়রুল কবির রুমেন, নোমান বখ্ত পলিন, অ্যাড. নান্টু রায়, হায়দার চৌধুরী লিটন, সিরাজুর রহমান সিরাজ, দেওয়ান ইমদাদ রেজা চৌধুরী, ইশতিয়াক শামীম, নূরে আলম সিদ্দিকী উজ্জ্বল, মফিজুল হক, শাহ্ আবু নাসের, অ্যাড. আব্দুল আজাদ রুমান, গোলাম সাবেরীন সাবু, সুবীর তালুকদার বাপ্টু, মোবারক হোসেন, রেজাউল আলম নিক্কু, আতিকুল ইসলাম আতিক, মোতাহার হোসেন আখঞ্জি, অ্যাড. হাসান মাহবুব সাদী, ফেরদৌসি সিদ্দিকা, বেনজির আহমদ মানিক, নুরুল আলম সিদ্দিকী, বিশ^ম্ভরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান সফর উদ্দিন, জেলা শ্রমিক লীগের সভাপতি সেলিম আহমদ, জেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আশিকুর রহমান রিপন প্রমুখ।
রমিজ বিপণির কার্যালয় থেকে বের হওয়া মিছিলের নেতৃত্ব দেন জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি জেলা পরিষদ প্রশাসক নুরুল হুদা মুকুট।
মিছিল শেষে রমিজ বিপণির চত্বরে সমাবেশে বক্তব্য দেন নুরুল হুদা মুকুট, সৈয়দ আবুল কাশেম, আবুল কালাম চৌধুরী, জুনেদ আহমদ, শংকর চন্দ্র দাস, তাহিরপুর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান করুণা সিন্ধু চৌধুরী বাবুল, দলীয় নেতা অ্যাড. আজাদুল ইসলাম রতন, সীতেশ তালুকদার মঞ্জু, জাহাঙ্গীর চৌধুরী, আবুল কালাম, হাবুল চৌধুরী, অমল কর, কল্লোল চৌধুরী, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক জুবের আহমদ অপু, যুবলীগ নেতা নুরুল ইসলাম বজলু, সবুজ কান্তি দাস, জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি দীপংকর কান্তি দে প্রমুখ।
এর আগে জেলা আওয়ামী লীগের সহসভাপতি নোমান বখ্ত পলিনের নেতৃত্বে আলাদা মিছিল শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে ঐতিহ্য জাদুঘর প্রাঙ্গণের দলীয় কর্মসূচীতে যোগদান করে। এছাড়া শহরে যুবলীগ, কৃষকলীগ ও ছাত্রলীগ আলাদা আলাদা মিছিল করেছে।