শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস পালন

প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার কারামুক্তি দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। সোমবার জেলা যুবলীগের সিনিয়র সদস্য নুরুল ইসলাম বজলু’র সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন, জেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক খন্দকার মঞ্জুর আহমদ।
এছাড়াও বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা যুবলীগ সভাপতি এহসান আহমদ উজ্জ্বল, সাধারণ সম্পাদক মাজহারুল ইসলাম উকিল, সহ সভাপতি ফয়সাল আহমদ, মো. ওলী নবী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক গিয়াস উদ্দীন, সাংগঠনিক সম্পাদক জেবুল মিয়া, দিলোয়ার হোসেন, সহ সম্পাদক রায়হান আহমদ, কুরবাননগর ইউপি যুবলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান হাবিব, শিক্ষা ও পাঠাগার সম্পাদক মো. শফিকুল হক।
এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি দীপঙ্কর কান্তি দে, সিনিয়র সহ সভাপতি লিখন আহমেদ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জগৎজ্যোতি রায় জয়, ছাত্রলীগ নেতা লায়েছ আহমদ।
উল্লেখ্য, দীর্ঘ প্রায় ১১ মাস কারাভোগের পর ২০০৮ সালের ১১ই জুন সংসদ ভবন চত্বরে স্থাপিত বিশেষ কারাগার থেকে মুক্তি পান প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনা। সেনা সমর্থিত ১/১১-এর তত্ত্বাবধায়ক সরকারের সময় ২০০৭ সালের ১৬ই জুলাই গ্রেপ্তার হন তিনি। এ সময় কারাগারের অভ্যন্তরে শেখ হাসিনা অসুস্থ হয়ে পড়েন। তখন বিদেশে চিকিৎসার জন্য তাকে মুক্তি দেয়ার দাবি ওঠে বিভিন্ন মহল থেকে। আওয়ামী লীগসহ অন্যান্য অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের ক্রমাগত চাপ, আপসহীন মনোভাব ও অনড় দাবির পরিপ্রেক্ষিতে তৎকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার শেখ হাসিনাকে মুক্তি দিতে বাধ্য হয়। প্রেস বিজ্ঞপ্তি