শোক সংবাদ

তাজুল ইসলাম
শাল্লা উপজেলায় মুক্তিযোদ্ধা তাজুল ইসলাম (৬৭) চলে গেলেন না ফেরার দেশে। বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১০ টায় সুলতানপুর নিজ বাড়িতে শেষ নিশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি। তাজুল ইসলাম বাহাড়া ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত লতিফ মিয়ার দ্বিতীয় পুত্র।
খবর পেয়ে বেলা সাড়ে ১ূ২ টায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আল মুক্তাদির হোসেন সঙ্গীয় পুলিশ ফোর্স নিয়ে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা গার্ড অব অনার প্রদান করেন। মৃত্যুকালে তিনি ছেলে মেয়ে স্ত্রীসহ অসংখ্য আত্মীয় স্বজন রেখে যান। তার মৃত্যুতে শাল্লা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সদস্যবৃন্দ, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান দিপু রঞ্জন দাস, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান অমিতা রানী দাস, উপজেলা প্রেসক্লাব সভাপতি পি সি দাশ তার আত্মার শান্তি কামনা করেন এবং শোকাহত পরিবারের সদস্যদের সমবেদনা জানান। পরে রাতেই দাফন সম্পন্ন করা হয়।
দিলেরা বেগম
দৈনিক ভোরের পৃথিবী সুনামাগঞ্জ জেলা প্রতিনিধি মো. আতিকুর রহমানের মা ও তাহিরপুর উপজেলার শ্রীপুর (উত্তর) ইউনিয়নের তরং গ্রামের গোলে-ই নুর মিয়ার স্ত্রী মোছা. দিলেরা বেগম (৫৫) আর নেই (ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।
বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ৭টার দিকে তিনি ইন্তেকাল করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্বামী, ২ ছেলে ও ৬ মেয়ে, আত্মীয় স্বজনসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।
আছরের নামাজের পর তার জানাজা শেষে পারিবারিক কবর স্থানে তাকে দাফন করা হয়।
এদিকে শোক-সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন, সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান, উপজেলা আওয়ামলীগ সভাপতি আবুল হোসেন খান, তাহিরপুর প্রেসক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম.এ রাজ্জাক, অর্থ সম্পাদক এস এম সাজ্জাদ হোসেন শাহ, সাংগঠনিক সম্পাদক কামাল হোসেন, সাংবাদিক আবির হাসান মানিক, মাইন উদ্দিন খান, আওয়ামী লীগ নেতা মোশারফ হোসেন খালেক, উম্মর আলী, ডা. মনির প্রমুখ।