সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের কল্যাণে অধিক গুরুত্ব দিয়েছে-পরিকল্পনামন্ত্রী

কাজী জমিরুল ইসলাম মমতাজ, দ.সুনামগঞ্জ
পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান বলেছেন, মুক্তিযোদ্ধাদের জন্য সরকার আন্তরিকভাবে কাজ করছে। মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মানী ভাতা, চিকিৎসাসহ তাদের সকল সুযোগ সুবিধা দিচ্ছে এ সরকার। উপজেলা ও জেলা সদরে অসহায় ভূমিহীন মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের জন্য বাড়ি নির্মাণ করা হচ্ছে। বর্তমান সরকার মুক্তিযোদ্ধাদের কল্যাণে অধিক গুরুত্ব দিয়েছে।
তিনি বলেন, বর্তমানে মহামারীতে সরকার জনগণের পাশে থেকে তাদের ঘরে ঘরে খাদ্য পৌঁছে দিচ্ছে। অসহায়দের মধ্যে ২৫০০ টাকা করে প্রধানমন্ত্রীর অর্থ সহায়তায় দেয়া হচ্ছে। আল্লাহর রহমতে আমরা শীঘ্রই এই পরিস্থিতি কাটিয়ে উঠতে সক্ষম হব। এসময় তিনি সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহবান জানান।
শুক্রবার বেলা ১১টায় দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে শান্তিগঞ্জ বাজারস্থ পরিকল্পনামন্ত্রীর হিজলবাড়ির মুনশী আরফান আলীর বৈঠক খানায় মুজিব শতবার্ষিকী উপলক্ষে জীবিত বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং তাদের পরিবারের মাঝে ৬৫ টি মুজিব কোর্ট ও ৫২ টি চাদর বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।
এসময় উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ আব্দুল আহাদ, পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান বিপিএম, সহকারী পুলিশ সুপার হায়াতুন নবী, উপজেলা নির্বাহী অফিসার জেবুন নাহার শাম্মী, উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান প্রভাষক নূর হোসেন, থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) হারুনুর রশীদ চৌধুরী, সুনামগঞ্জ জজ কোর্টের এপিপি এডভোকেট বশির উদ্দীন, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার তাসলিমা আক্তার লিমা, উপজেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি হাজী তহুর আলী,পরিকল্পনামন্ত্রীর একান্ত রাজনৈতিক সচিব হাসনাত হোসেন, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডের সাবেক কমান্ডার আতাউর রহমান, উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহবাহয়ক লিয়াকত আলী, উপজেলা প্রজন্মলীগের সাধারণ সম্পাদক জহিরুল ইসলাম অমিত , তফসিলদার কামাল হোসেন প্রমুখ।
বেলা সাড়ে ১১ টায় উপজেলা সমাজসেবা অফিসের আয়োজনে ক্যান্সার, কিডনি ও লিভার সিরোসিস আক্রান্ত হতদরিদ্র ১১ জনকে ৫০ হাজার টাকার অর্থ সহায়তার চেক প্রদান করেন পরিকল্পনামন্ত্রী এমএ মান্নান।