১৫ মে পর্যন্ত বাড়ছে ছুটি

সু.খবর ডেস্ক
দেশে করোনা পরিস্থিতির উন্নতি না হওয়ায় সাধারণ ছুটির মেয়াদ ১৫ মে পর্যন্ত বাড়ানো হচ্ছে। শনিবার জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ফরহাদ হোসেন এ তথ্য জানিয়েছেন। তবে ছুটির আদেশ রোববার জারি হতে পারে বলে জানান তিনি।

করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণ রোধে গত ২৬ মার্চ থেকে টানা ছুটিতে রয়েছে দেশ, যা আগামী ৫ মে শেষ হওয়ার কথা ছিল। তবে পরিস্থিতির উন্নতি না হওয়ায় আবার ছুটি বাড়ানো হচ্ছে।

ইতোমধ্যে সারাদেশকে করোনাভাইরাস সংক্রমণের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ ঘোষণা করেছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর।

প্রসঙ্গত, গত ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা আক্রান্ত রোগী শনাক্ত হয়। এরপর ধীরে ধীরে বাড়তে থাকে আক্রান্তের সংখ্যা। উদ্ভূত পরিস্থিতিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ রোধে প্রথম দফায় গত ২৬ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত সরকারি ও বেসরকারি অফিসে সধারণ ছুটি ঘোষণা করে সরকার। দ্বিতীয় দফায় তা ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত এবং তৃতীয় দফায় ২৫ এপ্রিল পর্যন্ত এবং চতুর্থ দফায় ৫ মে পর্যন্ত ছুটি বর্ধিত করা হয়।

ছুটির মেয়াদ বাড়ানো হলেও বিদ্যুৎ, পানি, গ্যাস ও অন্যান্য জ্বালানি, ফায়ার সার্ভিস, বন্দরসমূহের (স্থলবন্দর, নদীবন্দর ও সমুদ্রবন্দর) কার্যক্রম, পরিচ্ছন্নতা কার্যক্রম, টেলিফোন ও ইন্টারনেট, ডাকসেবাসহ আরও যেসব জরুরি সেবা রয়েছে, সেগুলো আগের মতোই খোলা থাকবে বলে জানা গেছে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, শনিবার পর্যন্ত দেশে মোট শনাক্ত রোগীর সংখ্যার দাঁড়িয়েছে ৮ হাজার ৭৯০ জনে। এদের মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১৭৫ জনের। আর আক্রান্তদের মধ্যে যারা হাসপাতালে চিকিৎসা নিচ্ছেন তাদের মধ্যে ১৭৭ জন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন।
সূত্র : সমকাল