আইসিসির মে মাসের সেরা মুশফিক

সু.খবর ডেস্ক
প্রথম বাংলাদেশি হিসেবে ‘আইসিসি প্লেয়ার অব দা মান্থ’-এর স্বীকৃতি পেলেন সাবেক অধিনায়ক মুশফিকুর রহিম। মে মাসের সেরা খেলোয়াড় হয়েছেন মুশফিক।
এক বিবৃবিতে সোমবার মে মাসের সেরা হিসেবে মুশফিকের নাম প্রকাশ করে বিশ্ব ক্রিকেটের সর্বোচ্চ নিয়ন্ত্রক সংস্থা ইন্টারন্যাশনাল ক্রিকেট কাউন্সিল (আইসিসি)।
‘আইসিসি প্লেয়ার অব দা মান্থ’-এর মে মাসের সংক্ষিপ্ত তালিকায় মনোনিত হয়েছিলেন মুশফিক। সেই তালিকায় তার সাথে ছিলেন পাকিস্তানের পেসার হাসান আলি ও শ্রীলংকার স্পিনার প্রবীন জয়াবিক্রমা। হাসান-জয়াবিক্রমাকে টপকে মে মাসের সেরার খেতাব পেলেন মুশি।
মে মাসে শ্রীলংকার বিপক্ষে একটি টেস্ট ও তিনটি ওয়ানডে খেলেছেন মুশফিক। ঘরের মাঠে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজে ৭৯ গড়ে ২৩৭ রান করেন মুশফিক। তার পারফরমেন্সে শ্রীলংকার বিপক্ষে প্রথমবারের মত দ্বিপাক্ষীক ওয়ানডে সিরিজ জয়ের স্বাদ পায় বাংলাদেশ। দ্বিতীয় ওয়ানডে ১২৫ রান করেন মুশফিক।
মে মাসে বাংলাদেশের বিপক্ষে অভিষেক টেস্টে চমক দেখান জয়াবিক্রমা। ১৬ দশমিক ১১ গড়ে ১১ উইকেট নিয়েছেন তিনি। দ্বিতীয় টেস্টে তার বোলিং পারফরমেন্সেই ম্যাচ ও সিরিজ জয়ের স্বাদ পায় শ্রীলংকা। আর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুই টেস্টেও সিরিজে ১৩ উইকেট নেন হাসান।
এদিকে, নারী ক্রিকেটের পুরস্কার জিতেছেন স্কটল্যান্ডের অলরাউন্ডার ক্যাথরিন ব্রাইস। মে মাসে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে চার টি-টুয়েন্টিতে ৯৬ রান ও ৫ উইকেট শিকার করেন ক্যাথরিন। মে মাসের পারফরমেন্সে তিনজন সেরা নারী ক্রিকেটারকে মনোনিত করেছিলো আইসিসি। ক্যাথরিনের সাথে ছিলেন স্কটল্যান্ডের গাবি লুইস ও আয়ারল্যান্ডের লি পল।
আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে আরও বেশি প্রতিযোগিতামূলক করতে চলতি বছরের জানুয়ারি মাস থেকে প্রতি মাসের সেরা ক্রিকেটারকে পুরস্কৃত করার নিয়ম চালু করেছে আইসিসি। এখন পর্যন্ত জানুয়ারি থেকে পাওয়া সেরার পুরস্কার জিতেছেন উপমহাদেশের খেলোয়াড়রাই।
আগের চার মাসে এই পুরস্কার জিতেছেন যথাক্রমে ভারতের ঋসভ পান্থ, রবিচন্দ্রন অশ্বিন, ভুবনেশ্বর কুমার ও বাবর আজম। এবার এশিয়ার পঞ্চম ক্রিকেটার হিসেবে তালিকায় নাম তুললেন মুশফিক।
এই সংক্ষিপ্ত তালিকায় আইসিসি ভোটিং একাডেমি এবং সারা বিশ্বের ভক্তদের মাধ্যমে ভোট করা হয়। আইসিসি ভোটিং একাডেমিতে প্রবীণ সাংবাদিক, সাবেক খেলোয়াড়, সম্প্রচারক এবং আইসিসি হল অফ ফেমের কিছু সদস্যসহ ক্রিকেট পরিবারের বিশিষ্ট সদস্যরা রয়েছেন।
ই-মেল দ্বারা তাদের ভোট জমা নিবে ভোটিং একাডেমি এবং ভোটের ৯০ শতাংশ ভাগ ধরে রাখবে। সংক্ষিপ্ত তালিকাভুক্ত খেলোয়াড়দেও নাম ঘোষণার পরে আইসিসির সাথে নিবন্ধিত ভক্তরা আইসিসি ওয়েবসাইটের মাধ্যমে ভোট দিতে পারবেন। ভোটের ১০ শতাংশ ভাগ পাবেন তারা। প্রতি মাসের দ্বিতীয় সোমবার বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করবে আইসিসি।
সূত্র : বাসস