আশারকান্দিতে নির্বাচনী ময়দানে সম্ভাব্য প্রার্থী ১১

আলী আহমদ, জগন্নাথপুর
ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন আগামী ২৩ ডিসেম্বর জগন্নাথপুরের সাতটি ইউনিয়নে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। নির্ধারিত এদিনে উপজেলার ৮নং আশারকান্দি ইউনিয়নে নির্বাচন হতে যাচ্ছে।
হয়রত শাহজালাল (রহ.) সঙ্গী দাওর বখশ খতিব এবং শাহ ফৈজ উদ্দিন বা ফেছন উদ্দিন এর স্মৃতি বিজড়িত আশারকান্দি ইউনিয়ন জুড়ে এখন নির্বাচনী আমেজ বিরাজ করছে।
এলাকাবাসীর সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন সামনে রেখে সম্ভাব্য প্রার্থীদের মধ্যে তৎপরতা শুরু হয়েছে। কেউ কেউ আগেভাগেই প্রচারে নেমেছেন।
এই ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে ১১ জনের নাম শুনা যাচ্ছে। তাঁরা হলেন বর্তমান চেয়ারম্যান যুক্তরাজ্য প্রবাসী শাহ আবু ইমানি, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি যুক্তরাজ্য প্রবাসী আলহাজ্ব আব্দুস সত্তার, সাধারণ সম্পাদক সাবেক চেয়ারম্যান আইয়ুব খান, আওয়ামী লীগ নেতা মশহুদ আহমদ, মোনায়েম খান ছাদ, যুক্তরাজ্য প্রবাসী আবু বক্কর খান, যুক্তরাজ্য প্রবাসী সৈয়দ জমিরুল হক, যুক্তরাজ্য প্রবাসী আহমেদ হোসেন কাজল, উপজেলা যুবলীগের সহসভাপতি হামিদুর রহমান চৌধুরী বাচ্চু, বিএনপি নেতা কাজল মিয়া ও গোলাম কিবরিয়া পারভেজ।
এসব প্রার্থীর মধ্যে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশি সাতজন।
স্থানীয়রা জানান, নির্বাচনকে কেন্দ্রে করে ইউনিয়নে সম্ভাব্য প্রার্থীদের মধ্যে তৎপরতা শুরু হয়েছে। গত ১০ নভেম্বর নির্বাচন কমিশন তফসিল ঘোষণা করলে শুরু হয় প্রার্থীদের মধ্যে দৌঁড়ঝাঁপ। চেয়ারম্যান প্রার্থীদের পাশাপাশি সাধারণ সদস্য (মেম্বার) ও সংরক্ষিত নারী সদস্যে পদে সম্ভাব্য প্রার্থীরাও প্রচারে রয়েছেন।
এদিকে ক্ষমতাসীন দলের টিকিট নিশ্চিত করতে তৎপর হয়ে ওঠেছেন নৌকা প্রত্যাশিরা। এরই মধ্যে তাঁরা দলীয় মনোনয়ন ফরম ক্রয় করে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে জমা দিয়েছেন।
দলীয় মনোনয়ন নিশ্চিত করতে কেন্দ্রীয় পর্যায়ে চলছে তদবির এবং জোর লবিং। সম্প্রতি আশারকান্দি ইউনিয়নে তৃণমূল আওয়ামী লীগের সভা থেকে দলীয় সাত সম্ভাব্য প্রার্থীর নাম উপজেলা কমিটির নিকট রেজুলেশন করে তালিকা দেওয়া হয়।
উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আকমল হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক রেজাউল করিম রিজু মিয়া বলেন, তৃণমূল থেকে প্রস্তাবিত সম্ভাব্য প্রার্থীদের নামের তালিকা আমরা জেলা কমিটির নিকট হস্তান্তর করেছি।
উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মুজিবুর রহমান জানান, আগামী ২৩ ডিসেম্বর ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ সময় আগামী ২৫ নভেম্বর, মনোনয়ন বাছাই ২৯ নভেম্বর, প্রত্যাহার ৬ ডিসেম্বর এবং আর প্রতীক বরাদ্দ ৭ ডিসেম্বর।
প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালের ২৭ মে অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আশারকান্দি ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী শাহ আবু ইমানী নির্বাচিত হন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ছিলেন আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সাবেক চেয়ারম্যান মদরিছ মিয়া।