ইউরোপ যাত্রা পথেই মারা গেলেন জগন্নাথপুরের সাজু

জগন্নাথপুর অফিস
স্বপ্নের দেশ ইউরোপের প্রবেশপথেই মারা গেল জগন্নাথপুরের মোহাম্মদ সাজু মিয়া নামের এক যুবক। সাজু মিয়া জগন্নাথপুর উপজেলার রানীগঞ্জ ইউনিয়নের রৌয়াইল গ্রামের আব্দুল কাদিরের ছেলে।
জানা যায়, প্রায় তিনমাস পূর্বে সাজু মিয়া তুর্কি চলে যান। সেখান থেকে স্বপ্নের দেশ গ্রীসের লক্ষ্যে গত শুক্রবার কয়েকজনের সঙ্গে যাত্রা করেন। গ্রীসের সীমান্তবর্তী স্থানে পৌছামাত্র হঠাৎ করে পেটের প্রচণ্ড ব্যথায় তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।
সাজুর বড় ভাই রৌয়াইল গ্রামের আবুল মিয়া বলেন. গত শনিবার আমার ভাইয়ের মৃত্যুর খবর পেয়েছি আমরা। ৫ ভাই ও ৩ বোনের মধ্যে সে ছিল সবার ছোট। তার মরদেহ দেশে আনার প্রস্তুতি চলছে বলে তিনি জানান।
স্থানীয় ইউপি সদস্য নাজমুল হোসেন বলেন, সাজুর স্বজনরা জানিয়েছেন ইউরোপের উদ্দেশ্যে সাজু মিয়া দুই থেকে তিনমাস আগে দেশ থেকে তুর্কি চলে যান। সেখান থেকে স্থলপথে গ্রীসে রওয়ানা হয়। প্রবেশ পথেই পেটের ব্যথায় তিনি মারা যান। সাজুর সঙ্গে থাকা কয়েকজন বাংলাদেশী তার মরদেহ কাঁধে করে পায়ে হেঁটে লাশ বহন করে গ্রীসের সীমান্ত এলাকায় নিয়ে গেছে। শুনেছি পুলিশ লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠিয়েছে।