একজন কাউন্সিলরও যদি বলে আমাকে চায় না, আমি থাকব না : শেখ হাসিনা

সু.খবর ডেস্ক
আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, দলীয় পদ থেকে বিদায় নেওয়ার জন্য আমি প্রস্তুত আছি। আওয়ামী লীগের একজন কাউন্সিলরও যদি বলে যে আমাকে চায় না সেদিন থেকে থাকব না। আমার অবর্তমানে যখন আমাকে আওয়ামী লীগের প্রেসিডেন্ট করেছিল তখন থেকেই এই শর্ত মেনে যাচ্ছি। অনেক দিন হয়ে গেছে। আমি অবশ্যই চাই আওয়ামী লীগে নতুন নেতৃত্ব আসুক। নেতৃত্ব কাউন্সিলরা ঠিক করেন। কাউন্সিলদের সিদ্ধান্তই চূড়ান্ত।
শেখ হাসিনা বলেন, ২০২১ সালে স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীতে আমরা উন্নয়নশীল দেশের মর্যাদায় পরিণত হয়েছি। এখন বিদায় নেওয়ার জন্য আমি প্রস্তুত।
সদ্য সমাপ্ত যুক্তরাষ্ট্র ও যুক্তরাজ্য সফর নিয়ে সংবাদ সম্মেলন শেষে বাংলাদেশ—যুক্তরাষ্ট্র সম্পর্ক নিয়ে এক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এসব কথা বলেন। বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টা থেকে প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে এ সংবাদ সম্মেলন করেন তিনি। এতে লিখিত বক্তব্যের পর প্রধানমন্ত্রী সাংবাদিকদের নানা প্রশ্নের উত্তর দেন। বাংলাদেশ টেলিভিশন ও বাংলাদেশ বেতারসহ দেশের বেসরকারি অনেক সংবাদমাধ্যম এটি সরাসরি সম্প্রচার করে।
যুক্তরাজ্য ও যুক্তরাষ্ট্রে ১৮ দিনের রাষ্ট্রীয় সফর শেষ করে প্রধানমন্ত্রী গত ৩ অক্টোবর (সোমবার) রাতে ওয়াশিংটন ডিসি থেকে দেশে ফেরেন। এর আগে যুক্তরাজ্যে রাষ্ট্রীয় সফরে ১৫ সেপ্টেম্বর লন্ডন যান। সেখানে তিনি রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের অন্ত্যেষ্টিক্রিয়া ও রাজা তৃতীয় চার্লস কর্তৃক আয়োজিত অভ্যর্থনায় যোগ দেন। ১৯ সেপ্টেম্বর তিনি নিউইয়র্কের উদ্দেশ্যে লন্ডন ত্যাগ করেন। যুক্তরাষ্ট্রে অবস্থানকালে প্রধানমন্ত্রী গত ২৩ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের (ইউএনজিএ) ৭৭তম অধিবেশনে ভাষণ দেন। এ ছাড়া বেশ কয়েকটি অনুষ্ঠানে অংশ নেন তিনি।
সূত্র : সমকাল