দিরাইয়ে কোন কারণ ছাড়াই সাংবাদিকের উপর হামলা করলো উশৃঙ্খলরা

স্টাফ রিপোর্টার
দিরাইয়ে জমি জমা নিয়ে দুইপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনার সময় কোন কারণ ছাড়াই ঘটনাস্থলে উপস্থিত সাংবাদিককে মারধর করেছে কিছু উশৃঙ্খল তরুণ। এরা দিরাই পৌরসভার সাবেক মেয়র মোশারফ মিয়ার আত্মীয় স্বজন বলে জানিয়েছেন আহত সাংবাদিক আবু হানিফ চৌধুরী।
প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দিরাই পৌর এলাকার দাউদপুরের জুলহাস মিয়া ও সোহেল মিয়ার মধ্যে বাড়ির জায়গা নিয়ে দ্বন্দ্ব চলছে। মঙ্গলবার বিকালে দ্বন্দ্বে জড়িত দুই পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ও স্থানীয় গণ্যমান্যরা গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করেন। এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলের পাশে দাঁড়ানো দৈনিক কালের কণ্ঠ ও দৈনিক সুনামগঞ্জের খবরের দিরাই প্রতিনিধি আবু হানিফকে গিয়ে কিল ঘুষি ও লোহার পাইপ দিয়ে আঘাত করে চ-িপুরের কিছু তরুণ। আবু হানিফকে দিরাই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
সাংবাদিক আবু হানিফ বললেন, আমি সংবাদ সংগ্রহের জন্য ঘটনাস্থলে গিয়েছিলাম। পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে দেখে চলে আসার জন্য রওয়ানা দেই। পথে দিরাই পৌরসভার সাবেক মেয়র মোশারফ মিয়ার ছেলে উজ্জ্বলসহ তার আত্মীয় উচ্ছৃঙ্খল কিছু তরুণ আমাকে কোন কারণ ছাড়াই মারধর করে। আমার উপর হামলার সময় আমি উজ্জ্বল, তার সম্পর্কিয় ভাই গোলাফ মিয়া, আছাব উদ্দিন ও শিহাব উদ্দিনকে লাটিসোটাসহ অস্ত্র হাতে দেখেছি। আবু হানিফ বলেন, উচ্ছৃঙ্খল ও সন্ত্রাসীদের কার্যকলাপ নিয়ে বিভিন্ন সময় সংবাদ করায় আমার উপর ক্ষিপ্ত ছিলো এরা।
দিরাই পৌরসভার সাবেক মেয়র মোশারফ মিয়া বললেন, আমি ঘটনার খবর নিয়ে যতটুকু জেনেছি আমার আত্মীয়-স্বজন কেউ সাংবাদিক আবু হানিফের উপর হামলা করে নি। আবু হানিফ ঝগড়ায় জড়িত সোহেল মিয়ার পক্ষে ওখানে গিয়েছিলেন বলে আমি জেনেছি। এর বেশি আমার জানা নেই।
দিরাই থানার ওসি আজিজুর রহমান বলেন, সাংবাদিক আবু হানিফের উপর কেন হামলা হলো এটি উপস্থিত লোকজনের কেউই বুঝে ওঠতে পারেন নি।
পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান বললেন, সাংবাদিকের উপর হামলাকারীদের গ্রেপ্তারের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।