নুরুল হুদা মুকুটকে নিয়ে মিথ্যা ফেসবুক স্ট্যাটাস/ শিমন ও নোমান নামের দুই ব্যক্তি গ্রেপ্তার

স্টাফ রিপোর্টার
সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহসভাপতি জেলা পরিষদ প্রশাসক বয়োজ্যেষ্ঠ রাজনীতিক নুরুল হুদা মুকুটকে নিয়ে মিথ্যা ফেসবুক স্ট্যাটাস দেবার অপরাধে দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এরা হলো তেঘরিয়ার বাসিন্দা শাহীনুর চৌধুরীর ছেলে শিমন চৌধুরী ও ওয়েজখালীর মুজিবুর রহমান খান এর ছেলে নোমান হাসান খান। এর আগে বুধবার রাতে নুরুল হুদা মুকুটের ব্যক্তিগত সহকারী পাবেল আহমদ বাদী হয়ে এই দুইজনকে আসামী করে থানায় মামলা দায়ের করেন।
মামলার বাদী পাভেল আহমদ জানান, সুনামগঞ্জের জ্যেষ্ঠ রাজনীতিক জেলা পরিষদ প্রশাসক নুরুল হুদা মুকুট যুক্তরাজ্যে অধ্যয়নরত তাঁর মেয়ের গ্রাজুয়েশন সমাপনী সমাবর্তন অনুষ্ঠানে যোগদান করতে গত ১৮ জুলাই যুক্তরাজ্যের উদ্দেশ্যে দেশ ছাড়েন। ১৯ জুলাই তিনি সেখানে পৌঁছান। বুধবার সুনামগঞ্জ শহরের ওয়েজখালীর নোমান হাসান খান এর ফেসবুক আইডি ‘সুনামগঞ্জের সৈনিক লীগ’ থেকে দেওয়া পর পর দুই বারের স্ট্যাটাসে উল্লেখ করা হয় ‘নুরুল হুদা মুকুট আর নেই।’ এই স্ট্যাটাসটি ভাইরাল হলে নুরুল হুদা মুকুট ও তার পরিবারের সদস্যদের কাছে দেশ ও বিদেশসহ নানা প্রান্ত থেকে ফোন আসতে থাকে। পরে নুরুল হুদা মুকুট ব্যক্তিগত ফেসবুক আইডি থেকে বুধবার বিকালেই দেওয়া স্ট্যাটাস সকলকে আশ^স্ত করে লিখেন, ‘একটি কুচক্রিমহল আমার সম্পর্কে মিথ্যা ও বিভ্রান্তিমূলক পোস্ট করেছে। আমি ভালো আছি। আগামী ছয় আগস্ট দেশে ফিরবো’।
সুনামগঞ্জ সদর থানার ওসি তদন্ত মনিরুজ্জামান জানান, জেলা পরিষদ প্রশাসককে নিয়ে ফেসবুকে মিথ্যা স্ট্যাটাস দেবার পর দায়ের করা মামলায় দুইজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদের মোবাইল জব্দ করা হয়েছে। জব্দ মোবাইল যাচাই করার জন্য বিশেষজ্ঞদের কাছে পাঠানো হবে।