বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন ভদ্র আর নেই

স্টাফ রিপোর্টার
বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন ভদ্র আর নেই। শনিবার সকাল সাড়ে ৯টায় সুনামগঞ্জ সদর হাসপাতালে বার্ধক্যজনিক কারণে তিনি পরলোকগমণ করেন। মৃত্যুকালে তিনি স্ত্রী, ১ ছেলে, ১ মেয়ে সহ অসংখ্য গুণগ্রাহী ও আত্মীয় স্বজন রেখে গেছেন। তাঁর অন্তোষ্টিক্রিয়া শনিবার বিকালে ধোপাখালী কেন্দ্রীয় শ্মশানে অনুষ্ঠিত হয়েছে।
এর আগে বিকাল ৪টায় ধোপাখালী শ্মশানে বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন ভদ্র কে রাষ্ট্রীয় মর্যাদা প্রদান করা হয়। এসময় উপস্থিত ছিলেন সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত, বীর মুক্তিযোদ্ধা হাজী নুরুল মোমেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মজিদ, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শংকর চন্দ্র দাশ, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মলয় চক্রবর্তী রাজু, জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি অ্যাডভোকেট বিমান কান্তি রায়, জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য অমল চৌধুরী হাবুল, সুনামগঞ্জ পৌর আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক লিটন সরকার এবং সুনামগঞ্জ সদর মডেল থানার পুলিশ সদস্যরা।
প্রসঙ্গত, সরকারি জুবিলী উচ্চ বিদ্যালয় থেকে ১৯৬৬ সালে এসএসসি, ১৯৭২ সালে সুনামগঞ্জ সরকারি কলেজ থেকে ইন্টারমিডিয়েট পাস করেন বীর মুক্তিযোদ্ধা সাধন ভদ্র। ছাত্র ইউনিয়ন করতেন তিনি। ঐ সময়ে আইয়ুব বিরোধী তীব্র গণআন্দোলন ও পরে স্বাধীনতা সংগ্রামে সক্রিয় অংশগ্রহণ করেন। সেক্টর কমান্ডার মীর শওকত ও সাবসেক্টর কমান্ডার ছিলেন ক্যাপ্টেন হেলাল উদ্দিনের নেতৃত্বে ৬ ডিসেম্বর সকাল সাড়ে ৮টায় ছাতক মুক্ত করেন। ইকো ওয়ান ট্রেনিং সেন্টার থেকে প্রথম ব্যাচে ট্রেনিং নিয়ে আসা মুক্তিযোদ্ধাদের যে দলটির সেলা সাব সেক্টরে পোস্টিং হয়, সেই দলের প্রথম সামরিক অপারেশনের প্রথম কমান্ডার ছিলেন সাধন ভদ্র।