শোক সংবাদ- সুভাষ চন্দ্র দাস

স্টাফ রিপোর্টার
সুনামগঞ্জ জজকোর্টের সহকারী পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাড. দেবাংশু শেখর দাস’র পিতা সুভাষ চন্দ্র দাস আর নেই।
রবিবার বেলা ১১টা ২০মিনিটের সময় বাধ্যর্কজনিত কারণে তিনি সুনামগঞ্জ জেলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল (৭৬) বছর। তিনি ৫ ছেলে, এক মেয়ে, নাতি নাতনি, আত্মীয়স্বজনসহ অনেক গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।
সুভাষ চন্দ্র দাস ১৩৪৯ বাংলায় দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার পশ্চিম বীরগাঁও ইউনিয়নের ঐতিহ্যবাহি টাইলা বড়বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন। গত ১৯ জুলাই তিনি অসুস্থতার কারণে সুনামগঞ্জ জেলা সদর হাসপাতালে ভর্তি হন। রবিবার সকালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মৃত্যুবরণ করেন। দুপুরে নিজ গ্রাম টাইলা শশ্মানঘাটে স্বর্গীয় সুভাষ চন্দ্র দাসের সৎকার অনুষ্ঠিত হয়।
সভায় চন্দ্র দাসের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন সুনামগঞ্জ ৩ আসনের সংসদ সদস্য ও পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান, সুনামগঞ্জ জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি ও জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আলহাজ¦ নুরুল হুদা মুকুট, জেলা যুবলীগের আহবায়ক ও সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান খায়রুল হুদা চপল, জেলা আওয়ামীলীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক অ্যাড. আজাদুল ইসলাম রতন, শিক্ষা ও মানব সম্পদ বিষয়ক সম্পাদক সীতেশ তালুকদার মঞ্জু, সুনামগঞ্জ পৌরসভার মেয়র নাদের বখত, সাবেক ভারপ্রাপ্ত মেয়র নুরুল ইসলাম বজলু, জেলা যুবলীগের সিনিয়র সদস্য সবুজ কান্তি দাস, শিক্ষক নেতা প্রণব দাস মিঠু, চরনারচর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রতন কুমার দাস তালুকদার, জেলা হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিস্টান কল্যাণ ফ্রন্টের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি অশোক তালুকদার ও যুবলীগ নেতা সিতেন্দ্র কুমার দাসসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দরাও শোক প্রকাশ করেছেন।
নেতৃবৃন্দরা স্বর্গীয় সুভাষ চন্দ্র দাসের আত্মার শান্তি কামনা করেন এবং শোকাহত পরিবারের সকল সদস্যদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করেন।