সকল নাগরিকের জন্য আইনের শাসন নিশ্চিত করতে হবে

স্টাফ রিপোর্টার
জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান ও সদস্যগণের সাথে সুনামগঞ্জ জেলার বিভিন্ন কর্মকর্তা, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী, বীর মুক্তিযোদ্ধা, মানবাধিকার কর্মী, আইনজীবী, সংবাদকর্মী ও বিভিন্ন শ্রেণি পেশার জনগণের মানবাধিকার বিষয়ক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১ টায় জেলা প্রশাসক ও সুনামগঞ্জ জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের আয়োজনে সুনামগঞ্জ জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে এই মত বিনিময়সভা অনুষ্ঠিত হয়।
মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের চেয়ারম্যান এনডিসি নাসিমা বেগম বলেন, ‘আমাদের মহান সংবিধানের প্রস্তাবনায়, সকল নাগরিকের জন্য আইনের শাসন, মৌলিক মানবাধিকার এবং রাজনৈতিক ও সামাজিক সাম্য, স্বাধীনতা ও সুবিচার নিশ্চিত করার অঙ্গিকার রয়েছে। ২০১৫ সালের ২৫ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের ৭০তম অধিবেশনে ১৯৩টি দেশ ২০১৫- ২০৩০ মেয়াদে টেকসই উন্নয়ন অভীষ্ট গ্রহণ করে। দারিদ্রতা নিরসন, ক্ষুধামুক্তি, অসমতা দূরীকরণ, জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব মোকাবেলা, স্বাস্থ্য, শিক্ষা নিশ্চিতকরণ, নারী ও কন্যা শিশুর ক্ষমতায়ন ইত্যাদির টেকসই উন্নয়ন নিশ্চিতকরণের ১৭টি লক্ষ্য এবং ১৬৯টি লক্ষ্যমাত্রা রয়েছে। এই বিষয়গুলোকে সামনে রেখে ৩০টি বিষয়কে সামনে রেখে আমরা কাজ করে যাচ্ছি।’ এসময় তিনি নারী নির্যাতনের কারণ সম্পর্কে মতামত জানতে চান উপস্থিত সবার কাছ থেকে।
সভার শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জাতীয় মানবাধিকার কমিশনের সহকারী পরিচালক আজহার হোসেন।
জেলা প্রশাসক মো. জাহাঙ্গীর আলম’র সঞ্চালনায় সভায় আরও বক্তব্য রাখেন, পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমান, শিক্ষাবিদ পরিমল কান্তি দে, বীর মুক্তিযোদ্ধা অ্যাড. আলী আমজাদ, ডেপুটি সিভিল সার্জন আশরাফুল হক, জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাড. মো. নজরুল ইসলাম, জগন্নাথপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মেহেদী হাসান, সমাজসেবা অফিসের উপপরিচালক সুচিত্রা রায়, জেলা ইসলামী অধিদপ্তরের ডিডি মো. আশরাফ উদ্দিন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ইউনিট কমান্ডের সাবেক কমান্ডার নুরুল মোমেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মালেক হোসেন পীর, জেলা বিটিবির প্রতিনিধি অ্যাড. আইনুল ইসলাম বাবলু প্রমুখ। প্রমুখ।